শিক্ষার্থীদের আন্দোলন নিয়ে বিএনপি নেতা আমির খসরুর অডিও ভাইরাল

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের টানা আন্দোলনে বিএনপির সংশ্লিষ্টতার চেষ্টা নিয়ে একটি অডিও ফোনালাপ ফেসবুক ও ইউটিউবে পড়েছে। দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরীর জনৈক নওমি নামে এক ব্যক্তির সঙ্গে কথোপকথনের ওই অডিও ক্লিপটি আন্দোলনের সপ্তম দিন শনিবার দুপুর দেড়টার দিকে ছড়িয়ে পড়ে। তবে, ওই অডিও ক্লিপটি তার নয় বলে দাবি করেছেন এই বিএনপি নেতা।

ইউটিউবে নাফিয়া ইসলাম নামের একটি অ্যাকাউন্ট থেকে ক্লিপটি আপলোড করা হয়। ওই অডিওতে নওমি নামে একজনকে কুমিল্লা থেকে ঢাকায় এসে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে সক্রিয় হতে অনুরোধ করেন আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী। অডিও ক্লিপটির শুরুতেই ফোনের রিং বাজতে শোনা যায়। এরপর মধ্যবয়সী এক ব্যক্তি ফোন রিসিভ করে হ্যালো বলেন। অপর প্রান্ত থেকে শোনা যায় এক যুবকের কণ্ঠস্বর।

অডিও’র কথোপকথন:

আমির খসরু: হ্যালো

নওমি: হ্যালো, আংকেল, নওমি বলছিলাম

আমির খসরু:  হ্যাঁ, নওমি ভালো আছো?

নওমি: আপনি ভালো আছেন?

আমির খসরু:  হ্যাঁ, ভালো আছি। তোমরা কি একটু ইনভলভ টিনভলভ হচ্ছো এগুলোতে নাকি?

নওমি: জ্বি, জ্বি। আংকেল, আমি তো এই যে কুমিল্লায় আসলাম।

আমির খসরু:  কুমিল্লায় না, নামায় দাও না। তোমাদের মানুষজন সব নামায় দেও না।

নওমি: হ্যাঁ.. হ্যাঁ.. হ্যাঁ… হাইওয়েতে নামছিল।

আমির খসরু: মানুষজন নামায় দাও, হাইওয়েতে-টাইওয়েতে অসুবিধা নাই। ঢাকায় মানুষজন নামায় দাও ভালো করে। বুজছো?  তোমাদের তো আর চেনে না।

নওমি: না… না… না…।

আমির খসরু:  তোমাদের বন্ধুবান্ধব নিয়ে তোমরা সব নেমে পড়ো না ঢাকায়…।

নওমি: জ্বি…জ্বি..জ্বি…, কনটাক্ট করতেছি সবার সঙ্গে।

আমির খসরু: কন্টাক্ট করো না। কখন আর কন্টাক্ট করবা? এখনই তো টাইম। আর কবে? এখন নামতে না পারলে তো আবার ডাউন করে যাবে। তুমরা নাইমা যাও না একটু বন্ধুবান্ধব নিয়ে…।

নওমি: হ্যাঁ..হ্যাঁ..হাইওয়েতে নামছিল তো, ঢাকা-চিটাগাংয়ে। এখানে এসপি সাহেব ঝাড়ি দিছে সবাইকে। সবাইকে উঠায়ে দিছে…।

আমির খসরু: হাইওয়ে টাইওয়ে অসুবিধা নাই। ঢাকায় নামায় দাও। ঢাকা হলে সারা দেশে এমনেই হবে। তোমরা ঢাকায় এসে…এখানে তো কুমিল্লা দরকার নাই আমার। তোমরা ঢাকায় এসে তোমাদের বন্ধুবান্ধব নিয়ে ২০০-৫০০ জন ওদের সাথে জয়েন করে যাও।

নওমি: জ্বি আংকেল। এমনে সবাই সংগঠিত হচ্ছে।

আমির খসরু: সংহতি দিয়ে কী হবে। তোমরা যারা আছো নাইমা যাও না।

নওমি: আংকেল একটা ছোট্ট বিষয়।

আমির খসরু: ফেসবুক টেসবুকে পোস্টিং-টোস্টিং করো সিরিয়াসলি।

নওমি: হ্যাঁ, এইটা করতেছি। এটাতে অ্যাকটিভ আছে সবাই। আমি আসতেছি।

আমির খসরু: হ্যাঁ করো। কুমিল্লা বসে থেকে লাভ কী! এখানে এসে জয়েন করো।

তবে, ওই অডিও ক্লিপটি তার নয় বলে দাবি করেছেন আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। অডিওটির বিষয়ে তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে সমর্থন থাকলেও সেখানে বিএনপির কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই। এ ধরনের কথা বলার কোনো প্রশ্নই আসে না। এর আগে খালেদা জিয়ার সাজার পর একটি ছড়িয়ে ছিল। এগুলো বানোয়াট। এখানকার সংশ্লিষ্টতা নিয়ে আমি কেন ফোনালাপ করব। আমি কেন কুমিল্লায় ফোনালাপ করব। আমি তো ওখানে কাউকে চিনিও না।

বিএনপির এ নেতা আরো বলেন, আমরা তো দলীয়ভাবেই তাদের সমর্থন দিয়েছি। কেউ যদি সহযোগিতা করতে চায়, আমরা তো বলেছি যে করো। দল থেকে সমর্থন দিয়েছে। কোটি-কোটি মানুষ সমর্থন দিয়েছে। সহযোগিতা মানে তো ওদের সঙ্গে আন্দোলনে নেমে পড়তে হবে, এমন না। সহযোগিতা সারা দেশের মানুষ করছে, পানি খাওয়াচ্ছে, ভাত খাওয়াচ্ছে, তাদের জন্য টিফিন নিয়ে যাচ্ছে। তো, সারা দেশের মানুষই তো সহযোগিতা করতেছে।’

এদিকে, আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরীর অডিও ফোনালাপ প্রসঙ্গে ডিএমপি কমিশনারকে সংবাদ সম্মেলন শেষে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘এটার অডিও আছে আমাদের কাছে আছে। আন্দোলন নিয়ে ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে। অতীতেও এ ধরনের ষড়যন্ত্র কাজে আসেনি। ছাত্রদের উদ্দেশ্য মহৎ। তাদেরকে ভিন্নপথে পরিচালিত করার জন্য ষড়যন্ত্র হচ্ছে।’